আ.লীগ নেতাকে অব্যাহতি, জানা গেল কারণ

মহানবী (সা.)-কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যকারী ভারতের বিজেপি নেত্রী নূপুর শর্মার ছবি দিয়ে ফেসবুকে ওই কলেজের একাদশ শ্রেণির এক ছাত্রের পোস্ট দেওয়াকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট ঘটনায় ধর্ম

অবমাননার অভিযোগ তুলেন ওই কলেজের ছাত্র ও স্থানীয় বিক্ষুব্ধ জনতা। একই ধর্মের হওয়ায় তাকে সাপোর্ট দিচ্ছে- এমন অভিযোগ তুলে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরিয়ে দেন।

নড়াইলে মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ শিক্ষক স্বপন কুমার বিশ্বাসকে গলায় জুতার মালা দেওয়ার ঘটনায় বিছালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং ওই কলেজের শিক্ষক আক্তার হোসেন টিংকুকে অব্যাহতি দেয়া হয়ছে।

এছাড়া তিনদিনের মধ্যে কারন দর্শাতে বলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (৩০ জুন) সদর উপজেলা আ.লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট অচিন চক্রবর্ত্তি এবং সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট ওমর ফারুক সাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

৩০ জুন স্বাক্ষরিত চিঠিতে বলা হয়, কারন দর্শানোর নোটিশ, এতদ্বারা আপানাকে কারন দর্শানো নোটিশ প্রদান করা যাচ্ছে যে, গত ১৮ই জুন/২২ তারিখে মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রী কলেজের এক ছাত্রের মোবাইলে স্ট্যাটাস নিয়ে এক সাম্প্রদাইক উস্কানীমুলক অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটে।

উল্লেখ্য, আপনি উক্ত কলেজের একজন শিক্ষক এবং ভিডিও ফুটেজে দেখা যায় আপনি সেখানে উপস্থিত ছিলেন। পরিশেষে দেখা যায় আপনার উপস্থিতিতে উক্ত কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যাক্ষকে জুতার মালা পরিয়ে বাহির করে আনা হয়। যাহা নিন্দনীয়,

শিক্ষক সমাজকে হেয় প্রতিপন্ন করার সামিল। বিভিন্ন পত্র পত্রিকায়, মিডিয়ার খবরে আপনাকে জড়িত করে সংবাদ পরিবেশিত হচ্ছে। সে কারনে আপনি এর দায়িত্ব এড়াইতে পারেন না এবং আমরা মরে করি আপনি সভাপতি হিসাবে যথাযথ ভাবে দায়িত্ব পালন করতে ব্যার্থ হয়েছেন।

উপরোক্ত কারনে আপনাকে উক্ত বিষয়ে এই পত্র পাওয়ার তিন দিনের মধ্যে নিম্ন স্বাক্ষরকারীদ্বয়ের নিকট লিখিত কারন দর্শাইতে বলা গেল এবং অদ্য হইতে ইউনিয়ন আ,লীগের সভাপতির দায়িত্ব থেকে সাময়ীক অব্যহতি দেওয়া হল। ইউনিয়নের সহ সভাপতি মশিয়ার রহমানকে দায়িত্ব দেওয়া হল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *