এবার ফাঁস হওয়া ফোনালাপটি অস্বীকার করলেন অধ্যক্ষ

রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার রাজাবাড়ী ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ সেলিম রেজাকে রাজশাহী-১ আসনের সংসদ সদস্য ফারুক চৌধুরী কর্তৃক পেটানোর বিষয়ে অধ্যক্ষের একটি ফোনালাপ ফাঁস হয়।

এরপর সারাদেশে আলোচনা ও সমালোচনা ছড়িয়ে পড়ে রাজনৈতিক অঙ্গন থেকে সামাজিক মাধ্যমগুলোতে। এর আগে গতকাল শনিবার (১৬ জুলাই) বেলা ১১টায় রাজশাহী মহানগরীর লক্ষ্মীপুর মোড়ে বেশ ঘটা করে

সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মহা. আসাদুজ্জামান আসাদ। যেখানে তিনি বলেন এমপির নানান চাপের কারণে ঘটনার সত্যতা থেকে সরে এসেছেন অধ্যক্ষ। ওই দিনের ঘটনার প্রমাণস্বরূপ হিসেবে সাংবাদিকদের কাছে

তিন একটি ফোনালাপের কথাপোকথন তুলে ধরেন।যেখানে অধ্যক্ষ সেলিম রেজার কণ্ঠে শোনা যায়, এমপি ফারুক চৌধুরীর দ্বারা তিনি লাঞ্ছিত হওয়ার ঘটনাটি এক ব্যক্তিকে জানাচ্ছেন। তবে ফাঁস হওয়া ফোনালাপটি তার নয় বলে দাবি করেন ওই অধ্যক্ষ।

রোববার সকালে (১৭ জুলাই) অধ্যক্ষ তার কর্মস্থলে (রাজাবাড়ী ডিগ্রি কলেজ) ফিরলে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে বলেন, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মহা. আসাদুজ্জামান আসাদ যে ফোনালাপটি ফাঁস করেছেন সেটি ক্লোনিং করা। সেটি আমর ভয়েজ নয়। অধ্যক্ষ আরও বলেন,

গোদাগাড়ী উপজেলার দেওপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আখতারুজ্জামান এই ফোন ক্লোনিং প্রকাশ করেছে। এটি রাজনীতি শিষ্টাচারবর্হিভূত। এ ব্যাপারে অধ্যক্ষ প্রয়োজনীয় আইননানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন বলেও জানান। অন্যদিকে, গোদাগাড়ী উপজেলার দেওপাড়া ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান

আখতারুজ্জামানকে তার ওপর ওঠা অভিযোগ সর্ম্পকে প্রশ্ন করলে তিনি বলেন, নিজে থেকে ওই অধ্যক্ষ আমাকে ফোন করে এমপির দ্বারা লাঞ্ছিত হওয়ার ঘটনাটি স্বীকার করেছেন। যেটা সত্য সেটি প্রকাশ করা হয়েছে। এই ফোনালাপটি কোনো ক্লোনিং করা হয়নি বা বিকৃত করা হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.