আমরা বলেছি সরকারকে কিন্তু কোনো উদ্যোগ নেই: জিএম কাদের

বাংলাদেশের অবস্থা শ্রীলঙ্কার মতো হতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা

গোলাম মোহাম্মদ (জিএম) কাদের। বৃহস্পতিবার (১৪ জুলাই) বিকেলে রাজধানীর কাকরাইলে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন। জিএম কাদের বলেন,

বাংলাদেশের সঙ্গে শ্রীলঙ্কার অনেক মিল আছে। বাংলাদেশ ও শ্রীলঙ্কা বিদেশ থেকে রেমিট্যান্স গ্রহণ করে। এছাড়া পর্যটন থেকে আয় করে, আবার পোশাক শিল্প থেকেও আয় করে এই দুটি দেশ।

করোনা বা রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে শ্রীলঙ্কা দেউলিয়া হয়নি উল্লেখ করে জিএম কাদের বলেন, দেশটি দেউলিয়া হয়েছে বিদেশি ঋণ পরিশোধ করতে গিয়ে।

আমরা যে বাজেট করছি তা ঋণনির্ভর। আমরা পরিচালন ব্যয় কমাতে বলেছি সরকারকে কিন্তু কোনো উদ্যোগ নেই। অকারণে ফুর্তি করতে ব্যয় হচ্ছে হাজার কোটি টাকা।

তিনি বলেন, গত বছরও পুরো ট্যাক্স আদায় করতে পারেনি সরকার। এবার সাধারণ মানুষ ট্যাক্স দিতে না পারলে অবস্থা আরও খারাপ হবে। বিদেশি ঋণ নিয়ে বড় বড় মেগা প্রকল্প বাস্তবায়ন করছে সরকার।

যখন সুদসহ ঋণ পরিশোধ করতে হবে তখন দেশের অবস্থা খুবই খারাপ হয়ে যাবে। জাপা চেয়ারম্যান আরও বলেন, ৩০ হাজার কোটি টাকা ঋণ নিয়ে যদি কোনো মেগা প্রকল্প বাস্তবায়ন হয়,

আর সেখান থেকে প্রতিদিন এক কোটি টাকা করে আসে, তাহলে বছরে ৩৬৫ কোটি টাকা আয় হয়, তাহলে শুধু আসল পরিশোধ করতে ৯০ বছর লেগে যাবে। আবার সুদের টাকাও পরিশোধ করতে হবে। সুদসহ ঋণ পরিশোধ করতে গিয়েই দেউলিয়া হয়ে গেছে শ্রীলঙ্কা।

পরিচালন ব্যয় না কমালে ব্যাংক থেকে ঋণ করে বেতন-ভাতা পরিশোধ করতে হবে বলে জানান তিনি। ফলে দেশের অবস্থা শ্রীলঙ্কার মতো হতে পারে বলে জানান জাপা চেয়ারম্যান। মেগা প্রকল্পের নামে দেশে লুটপাট চলছে উল্লেখ করে জিএম কাদের বলেন, প্রতি বছর দেশ থেকে হাজার কোটি টাকা বিদেশে পাচার হচ্ছে। এতদিন সরকার টাকা পাচারের কথা স্বীকার করেনি। এখন ট্যাক্সের বিনিময়ে অবৈধ পন্থায় অর্জিত পাচার হওয়া হাজার কোটি টাকা বৈধ করার পন্থা বের করেছে। এমন নজির পৃথিবীর কোথাও নেই। আওয়ামী লীগ ও বিএনপির সমালোচনা করে তিনি বলেন, দুটি দলই দুর্নীতি করেছে। আওয়ামী লীগ প্রথম দুর্নীতিতে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। এরপর বিএনপি পরপর চারবার দুর্নীতিতে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.