ঘাপটি মেরে থাকা দুর্নীতির ভূত তাড়াতে হবে, মুখ খুললেন রাব্বানী

রাজনীতি: বাংলাদেশ রেলওয়ের অব্যবস্থাপনা পরিবর্তনে এবং যাত্রী হয়রানির প্রতিবাদে ছয় দফা দাবিতে অবস্থান

কর্মসূচি চালিয়ে যাচ্ছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) থিয়েটার অ্যান্ড পারফরম্যান্স স্টাডিজ বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মহিউদ্দিন রনি।

তার দাবিগুলোকে যৌক্তিক জানিয়ে রনির পাশে দাঁড়ালেন ছাত্রলীগের সাবেক সাধরাণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী। এক ফেসবুক পোস্টে গোলাম রাব্বানী লেখেছেন,

‘বাংলাদেশ রেলওয়েতে চলা দীর্ঘদিনের অনিয়ম, অব্যবস্থাপনা, দুর্নীতির বিরুদ্ধে ছয় দফা দাবি নিয়ে কমলাপুর রেলস্টেশনে ছয় দিন যাবৎ প্রতিবাদী অবস্থান ধর্মঘট করছেন

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মহিউদ্দিন রনি। শতভাগ নৈতিক ও যৌক্তিক দাবিগুলোর প্রতি আমরা হাত তুলে সমর্থন জানিয়েছি। ছয় দফা দাবি হলো-

১. টিকিট ক্রয়ের ক্ষেত্রে সহজ.কম কর্তৃক যাত্রী হয়রানি অবিলম্বে বন্ধ করতে হবে। হয়রানির ঘটনায় তদন্তপূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে।

২. যথোপযুক্ত পদক্ষেপ গ্রহণের মাধ্যমে টিকিট কালোবাজারি প্রতিরোধ করতে হবে।

৩. অনলাইন-অফলাইনে টিকিট ক্রয়ের ক্ষেত্রে সর্বসাধারণের সমান সুযোগ-সুবিধা নিশ্চিত করতে হবে।

৪. যাত্রী চাহিদার সঙ্গে সংগতি রেখে ট্রেনের সংখ্যা বৃদ্ধিসহ রেলের অবকাঠামো উন্নয়নে দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণ করতে হবে।

৫. ট্রেনের টিকিট পরীক্ষক ও তত্ত্বাবধায়কসহ অন্যান্য দায়িত্বশীলের কর্মকাণ্ড সার্বক্ষণিক মনিটর, শক্তিশালী তথ্য সরবরাহ ব্যবস্থা গড়ে তোলার মাধ্যমে রেলসেবার মান বৃদ্ধি করতে হবে।

৬. ট্রেনে ন্যায্য দামে খাবার বিক্রি, বিনা মূল্যে বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ ও স্বাস্থ্যসম্মত স্যানিটেশনব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে। গোলাম রাব্বানী তার ফেসবুক পোস্টে আরো লেখেন, ‘রেল, বিমান, বিআরটিএসহ সব রাষ্ট্রীয় সেবা সংস্থাগুলোতে ঘাপটি মেরে থাকা দুর্নীতির ভূত তাড়াতে হবে। স্তরে স্তরে চলা সব অনিয়ম ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে উচ্চকণ্ঠ প্রতিবাদ করতে হবে। যারা মেরুদণ্ড সোজা করে দাঁড়াবে, তাদের সমর্থন জানাতে হবে। এভাবেই পরিবর্তন আসবে, আমরা জাগলে ইতিবাচক পরিবর্তন আসতে বাধ্য!’

Leave a Reply

Your email address will not be published.