মিন্নি চরিত্রে মিম, নয়ন বন্ড শরীফুল রাজ!

২০১৯ সালের জুনে একটি ঘটনায় উত্তাল হয়েছিল গোটা দেশ।বরগুনার কলেজ রোড এলাকায় প্রকাশ্য দিবালোকে রিফাত শরীফ নামের এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা করে

নয়ন বন্ড ও তার দল। এসময় স্বামী রিফাতকে সন্ত্রাসী হামলা থেকে বাঁচানোর আপ্রাণ চেষ্টা করছিলেন স্ত্রী মিন্নি।পরে ঘটনার তদন্তে বেরিয়ে আসে অনেক চাঞ্চল্যকর তথ্য। আর মূলত এই কাহিনিকে কেন্দ্র করেই চিত্রনাট্য

তৈরি করা হয়েছে পরাণ চলচ্চিত্রের। অন্তত সম্প্রতি মুক্তি পাওয়া ট্রেলার দেখে এমনটাই বলছেন চলচ্চিত্রসংশ্লিষ্টরা ‘পরাণ’ চলচিত্রে মিন্নি চরিত্রে অভিনয় করছেন বিদ্যা সিনহা মিম, নয়ন বন্ড চরিত্রে অভিনয় করছেন রিফাত শরীফ।

অন্যদিকে নির্ম হত্যাকাণ্ডের শিকার রিফাত শরীফ চরিত্রে অভিনয় করেছেন ইয়াশ রোহান। চলচ্চিত্রটি মুক্তি পাচ্ছে আগামী ১০ জুলাই ঈদের দিন। তবে ছবিটির নির্মাতা রায়হান রাফি বিষয়টি নিয়ে স্পষ্ট কিছু বলছেন না। ‘অনেকেই অনেক কথা বলছে।

চলুক আলোচনা। ’ রিফাত শরীফ হত্যাকাণ্ড নিয়ে চলচ্চিত্রটি বানানো কি না সে বিষয়ে স্পষ্ট করে না বললেও নাকচ করে দেননি। মূলত ‘পরাণ’ সিনেমার কাজ শেষ হয় ২০১৯ সালের দিকে। এরপর মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল ২০২০ সালের ভালোবাসা দিবসে।

সে লক্ষ্যে টিজারও প্রকাশ করা হয়। যেটা দেখে দর্শক মনে সিনেমাটি ঘিরে দারুণ আগ্রহ তৈরি হয়। কিন্তু মহামারি করোনায় সব ভেস্তে যায়। দুই বছর পিছিয়ে অবশেষে মুক্তি পাচ্ছে ‘পরাণ’। মূল ঘটনার অন্যতম খল চরিত্র নয়ন বন্ড। সেই নয়ন বন্ডের চরিত্রে অভিনয় করেছেন শরীফুল রাজ।

আলাপকালে নয়ন বন্ড চরিত্রের প্রসঙ্গটিও কৌশলে এড়িয়ে যান তিনি। শরিফুল রাজ বলেন, ট্রেলার প্রকাশের পর মানুষ নয়ন বন্ডের সঙ্গে কিছুটা মিল পাচ্ছে। আসলেই সেই হত্যাকাণ্ড বা কী কাহিনি সেটা ‘পরাণ’ সিনেমাটা দেখলে বোঝা যাবে। মফঃস্বলের প্রেমিকরা এমনই। প্রেমে পড়লে নানা রকম ঘটনা ঘটায়। একইভাবে এই চরিত্রে আমি ডেসপারেট ছিলাম।

এছাড়া সিনেমায় বিদ্যা সিনহা মিম ও চিত্রনায়ক শরিফুল রাজ ছাড়াও রয়েছেন ইয়াশ রোহান। যাকে রিফাত শরীফ চরিত্রটি মনে করা হচ্ছে। এই সিনেমার মাধ্যমে তিন বছর পর ঈদে মুক্তি পাবে বিদ্যা সিনহা মিমের সিনেমা আর চিত্রনায়ক শরিফুল রাজের ঈদে মুক্তি পাওয়া প্রথম সিনেমা হবে এটি। ছবির চিত্রনাট্য করেছেন শাহজাহান সৌরভ ও রায়হান রাফি। সংগীত পরিচালক নাভেদ পারভেজ ও ইমন চৌধুরী।

Leave a Reply

Your email address will not be published.